Link copied!
Sign in / Sign up
10
Shares

নখকুনি থেকে মুক্তির উপায়


বর্ষাকালে পায়ের নখে ফাংগাসের সমস্যায় ভোগেন অনেকেই। ধুলোবালির সাথে কাদা নখের কোণায় ঢুকে গিয়ে জমে থাকে। তারপর সেখানেই জন্ম নেয় নানা ধরনের ব্যাকটেরিয়া। যা থেকে নখের কোণায় তৈরি হয় পুঁজ, ফুলে লাল হয়ে যায়। আর সেইসাথে যন্ত্রণা তো আছেই। অনেকে একে কুনি নখও বলে থাকেন।

এ সময় নখের রঙ হলদেটে হয়ে দেখতে বিশ্রী লাগে। তবে তিনটি সহজ ঘরোয়া উপায়ে এই সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে পারেন।

১. হলুদ

কয়েক টুকরো কাঁচা হলুদ কেটে নিয়ে অলিভ অয়েল বা আমন্ড অয়েলে দিয়ে ফোটান। এবার এক টেবিল চামচ হলুদের সাথে তেল ও তিন টেবিল চামচ জল মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণ দিনে তিনবার আক্রান্ত জায়গায় লাগান। মনে রাখবেন, হলুদ খুব ভালো অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল উপাদান।

২. বেকিং সোডা

হাল্কা গরম পানি বেকিং সোডা মিশিয়ে সেই পেস্টটি আক্রান্ত নখের উপর লাগান। শুকিয়ে গেলে ধুয়ে ফেলুন। দিনে ২-৩ বার ব্যবহার করুন। বেকিং সোডার অ্যাল্কালাইন ক্ষতিকর ব্যাকটেরিয়া ধ্বংস করে।

৩. ভিক্স

সর্দি, মাথাব্যথায় ভীষণ ব্যবহৃত এ মলমটি সহজে ফাংগাস তাড়ানোর সবচেয়ে ভালো উপায়। দিনে দুইবার আক্রান্ত নখে ভিক্স লাগান। এরপর সেই নখে গজ দিয়ে একটি ব্যান্ডেজ করে রাখতে পারেন।

৪. গরম ঝোল

পুরোনো দিনে মা,ঠাকুমাকে দেখবেন রান্না করা গরম ঝোল নখের কোনে দিতে। ঝোলে নুন, হলুদ থাকায় এবং গরম হবার কারণে ক্ষতিকর ব্যাকটেরিয়া নষ্ট হয়।

৫. গরম বোরোলীন

বোরোলীন একটি চামচের ওপর নিয়ে হালকা গরম করে গলিয়ে নিন,এবার নখের যে অংশে এমন সমস্যা সেখানে ভালো ভাবে গরম থাকা কালীন লাগিয়ে নিন। এমন ভাবে কয়েক দিন লাগান আরাম পাবেন।

Click here for the best in baby advice
What do you think?
0%
Wow!
0%
Like
0%
Not bad
0%
What?
scroll up icon