Link copied!
Sign in / Sign up
1
Shares

ঠিক কোন কোন বিষয় মহিলারা তার স্বামী বা প্রেমিকের থেকে গোপন রাখেন?

 

মেয়েদের এমন কিছু ‘সিক্রেট’ রয়েছে, যা তাঁরা কখনওই পুরুষের সঙ্গে শেয়ার করেন না। পুরুষরাও সচরাচর এই সব প্রসঙ্গের অবতারণা মেয়েদের সঙ্গে করেন না।

যতই লিঙ্গ-সাম্যের প্রশ্ন নিয়ে তুলকালাম হোক না কেন, মেয়েদের ভুবনের একান্ত পরিসরগুলোয় পুরুষের প্রবেশ আজও নিয়ন্ত্রিত। মনোবিদরা যে বিষয়টি নিয়ে বিশেষ রকমের ভাবিত, সেই কথা তাদের একটি প্রতিবেদনে জানিয়েছে ওয়েবসাইট ‘চেঞ্জপোস্ট’। এই প্রতিবেদনে মেয়েদের এমন কিছু ‘সিক্রেট’-এর কথা বলা হয়েছে, যা তাঁরা কখনওই পুরুষের সঙ্গে শেয়ার করেন না। পুরুষরাও সচরাচর এই সব প্রসঙ্গের অবতারণা মেয়েদের সঙ্গে করেন না। তবে ‘চেঞ্জপোস্ট’-এ উল্লিখিত বিষয়গুলি কিন্তু সর্বজনীন নয়। স্থানমাহাত্ম্যে এদের ব্যতিক্রমও ঘটে। এখানে তেমন ৪টির উল্লেখ করা হল, যার সঙ্গে আমাদের দেশের কিছুটা মিল রয়েছে।

• তাঁরা কাকে ঈর্ষা করেন, একথা মেয়েরা কখনওই স্পষ্ট করে জানান না। যদি তাঁদের কোনও ঘনিষ্ঠজন বিষয়টির অবতারণা করেন, তাঁরা সরাসরি তা অস্বীকার করেন।

• কয়েকটি প্রসাধন, বিশেষ করে ওয়াক্সিং-এর মতো বিউটি ট্রিটমেন্টের কথা মেয়েরা পুরুষের কাছে চেপে যান। অবাঞ্ছিত লোমনাশন আজও এক ‘গোপন’ কর্ম।

• মাথায় চুল পাকলে তাকে কালো বা স্বাভাবিক রংয়ে রাঙিয়ে নেওয়া তেমন কোনও ব্যাপারই নয় আজ। তবু, কোনও মহিলাই স্বীকার করতে চান না, চুলের কলপ-রহস্য।

• সঙ্গীর সঙ্গে ঘনিষ্ঠ মুহূর্তে কিছু অস্বস্তি হতেই পারে। কিন্তু প্রেমিকা বা সঙ্গিনী সেটা রীতিমতো চেপে যান। দাঁত চেপে সহ্য করেন, বলা যায়। যেমন— সঙ্গীর গায়ের অথবা নিঃশ্বাসের দুর্গন্ধ।

উপরের মন্তব্য বা মতামত তর্কের ঊর্ধ্বে নয়। কিন্তু এতে কেউ দয়া করে মেয়েদের হেয় করার অভিপ্সা খুঁজবেন না। একথা না মেনে উপায় নেই, মেয়েদের এই তথাকথিত ‘স্ব-ভাব’গুলি পুরুষতান্ত্রিক সমাজেরই তৈরি। এর উদ্দেশ্য সম্পূর্ণ আত্মসমর্পণ। মেয়েরা এই কথাগুলি মুখ ফুটে না বললেও পুরুষ সবই জানে।

Click here for the best in baby advice
What do you think?
0%
Wow!
0%
Like
0%
Not bad
0%
What?
scroll up icon