Link copied!
Sign in / Sign up
8
Shares

যখন আপনার দ্বিতীয় সন্তান হতে যাচ্ছে তখন আপনার প্রথম সন্তানের সঙ্গে কেমন ব্যবহার করবেন


যখন আপনি দ্বিতীয় সন্তান নেওয়ার পরিকল্পনা করছেন তখন আপনার আগের সন্তানকে আপনি কিভাবে রাখবেন সে সম্বন্ধে কিছু গুরুত্বপূর্ণ বিষয় আপনার মনে রাখা দরকার। এতদিন পর্যন্ত সে ছিল আপনার প্রথম সন্তান এবং সেই গুরুত্ব সম্পূর্ণ পালটে যায় যখনই দ্বিতীয় সন্তানের আগমন ঘটে। আমার মনে হয় যে দ্বিতীয় শিশুর আগমন আগের শিশুকে সব থেকে বেশী প্রভাবিত করে কেননা সে বুঝতে পারে যে সবকিছু খুব দ্রুত পাল্টে যাচ্ছে।

দ্বিতীয় সন্তান আসার আগে প্রথম সন্তানকে মানসিকভাবে প্রস্তুত করার জন্য কি করা যেতে পারে? এখানে দেওয়া হয়েছে কিছু পরামর্শ।

১। আপনার বাচ্চা আপনার কাছ থেকেই দ্বিতীয় সন্তানের কথা শুনতে চায়। এটা খুব গুরুত্বপূর্ণ যে অন্য কেউ নয় মা বাবাই তার কাছে এই খবরটা প্রকাশ করুন।

২। যদি এমন হয় যে আপনার বাচ্চা আপনাদের সঙ্গেই ঘুমাত এবং তাকে অন্য ঘরে সরাতে হবে, তবে সেটি দ্বিতীয় সন্তান আসার অনেক আগেই সম্পন্ন করুন।

৩। প্রাথমিকভাবে একটি নতুন বাচ্চাকে পাওয়া ঠিক কেমন ব্যপার সেকথা আপনার বাচ্চাকে বলে তাকে প্রস্তুত করুন। তাকে বলুন একটা নতুন বাচ্চা কি কিরে, কিভাবে সে কিছু সময়ের জন্য খেলার সাথী হয়।

৪। যাদের বাচ্চা আছে এমন বন্ধুদের বাড়িতে যান যাতে আপনার সন্তান বুঝতে পারে কে আসছে।

৫। আপনার শিশুকে তার প্রথমদিকের ছবি এবং ভিডিও দেখান এবং সাধারণভাবে শিশুদের নিয়ে কথবার্ত্তা বলুন।

৬। শিশুর হাতে একটা পুতুল দিন যাতে সে জেনে নিতে পারে কিভাবে বাচ্চাকে রাখতে হয়।

৭। আপনার শিশুকে যেভাবে সম্ভব বাচ্চাদের সম্পর্কিত কোন কাজের দায়িত্ব দিন, আর এমনভাবে যে সে ওই কাজে সংযুক্ত হতে ভালবাসে। নতুন বাচ্চার জন্য জামার রঙ পছন্দ করা বা তার জন্য একটা ডাকনাম নির্বাচন করা এইরকম কিছু দায়িত্বের উদাহরণ।

নতুন বাচ্চার সঙ্গে মানিয়ে নেওয়ার জন্য আপনার প্রথম শিশুকে কিভাবে সাহায্য করতে পারেন? যেই মূহুর্তে নতুন সন্তান জন্মাবে সবকিছুই পালটে যাবে। দেখুন কিভাবে আপনি নতুন বাচ্চার সঙ্গে মানিয়ে নেওয়ার জন্য আপনার প্রথম শিশুকে সাহায্য করতে পারেন।

১। আপনি এটা নিশ্চিত করুন যে প্রতিদিন শুধু তার সঙ্গে কাটানোর জন্য আপনি কিছুটা সময় রাখচেন। নিয়মিত মাত্র ১০ মিনিটের সময়ও অনেক বড় পার্থক্য গড়ে দিতে পারে।

২। তার অভ্যস্ত পরিবেশ পরিসর পাল্টে যাওয়র জন্য আপনার প্রথম সন্তান আক্রমনাত্মক হয়ে উঠতে পারে,তার এই শিশু আবেগকে মর্যাদা দিয়ে সামলানোর চেষ্টা করুন।

৩। আপনার প্রথম সন্তান যদি একটু বায়না মিটিয়ে নিতে চায় তবুও তাকে একটু লাই দিন। কখনও কখনও তার সঙ্গে এমন ব্যবহার করুন যেন সে একেবারে কচি বাচ্চা।

৪। আপনার দুই সন্তানের মধ্যে বন্ধন তৈরী করতে সাহায্য করুন। তাদের একসঙ্গে থাকতে দিন এবং আপনার বড় বাচ্চাকে শেখান কিভাবে ছোট বাচ্চাদের খেয়াল রাখতে হয়।

৫। যখন আপনার বন্ধুরা আপনার নতুন সন্তানকে দেখতে আসেন, তাদেরকে কিছুটা সময় প্রথম বাচ্চার সঙ্গেও কাটাতে বলুন।

৬। নিশ্চিত করুন যেন বাচ্চার নিজস্ব জায়গা থাকে এবং তার নিজের জিনিস ঠিকঠাক রাখা থাকে।

৭। দুজনের মধ্যে বড় হওয়ার গুরুত্ব কি এটা তাদের বুঝতে দিন এবং তাদের মনে তৃপ্তির পরিবেশ তৈরি করুন।

৮। কখনও কখনও প্রথম সন্তানের জন্যেও খেলনা আনুন যাতে সে নিজেকে অবহেলিত বা গুরুত্বহীন মনে না করে।

৯। দ্বিতীয় বাচ্চার পরিচর্যা করার সময় প্রথম বাচ্চাকেও এইকাজে সংযুক্ত করুন, যেমন, স্নানের সময়, খেলার সময় ইত্যাদি। প্রথম সন্তানকে এই কাজে পালন করার মত কিছু দায়ীত্ব দিন।

এই আগের ও পরের কাজগুলি প্রথম সন্তানকে আরো ভালভাবে দেখভালের জন্য আপনার সহায়তা করবে এবং দ্বিতীয় বাচ্চা আসার পর সব শান্তিপূর্ণ ভাবে চলবে। প্রথম সন্তানকে তার নিজের কছে প্রয়োজনীয় মনে করানো এবং যা আসছে তার জন্য প্রস্তুত করানো জরুরী। আপনার প্রথম বাচ্চা সবসময় নিরাপত্তাহীনতাতে ভুগবে কিন্তু আপনাকে এই বিষয়টি নজরে রাখতে হবে। অভিভাবকত্ব উপভোগ করুন।

আমাদের এই পোস্টটি পড়ার জন্যে ধন্যবাদ। 

Click here for the best in baby advice
What do you think?
0%
Wow!
0%
Like
0%
Not bad
0%
What?
scroll up icon